June 23, 2021, 7:23 pm

creativesoftbd.com

ধামরাইয়ে দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ৪,আহত ৩৫ জন

কালিয়াকৈর প্রতিনিধি, মামুনঃ

ঢাকার ধামরাইয়ে দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে চারজন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় ৩৫ জন আহত হয়েছেন।  আহতদের ফায়ার সার্ভিসের একটি দল উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ভর্তি করেছে। তাৎক্ষণিকভাবে নিহতদের পরিচয় জানাতে পারেনি পুলিশ। ধামরাই থানার এসআই জুলফিকার দুর্ঘটনার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

শুক্রবার রাত পৌনে ৮টার দিকে ধামরাইয়ের কেলিয়া এলাকার ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের জয়পুরা বাসস্ট্যান্ডে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

পুলিশ জানায়, সড়ক দুর্ঘটনায় ঢাকার ধামরাইয়ে দুটি যাত্রীবাহী বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে  ঘটনাস্থলেই তিনজন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও অন্তত ৩৫ জন। আহতদের হাসপাতালে নেয়ার সময় আরও একজন মারা গেছেন। আহতদের মধ্যে ১২ জনের অবস্থা গুরুতর। এর মধ্যে ৫ জনের অবস্থার অবনতি ঘটায় তাদের ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও ফায়ার সার্ভিস সূত্র জানায়, শুক্রবার রাতে প্রায় ৩৫ জন যাত্রী নিয়ে সূর্যমুখী নামের একটি যাত্রীবাহী বাস আরিচার দিকে যাচ্ছিল। বাসটি ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের জয়পুরা বাসস্ট্যান্ড এলাকায় পৌঁছালে বিপরীত দিক থেকে ছেড়ে আসা সেতু পরিবহনের ৪৫ জন যাত্রীবোঝাই অপর একটি বাসের সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই  দুই যানবাহনের চারজন মারা যান। এছাড়াও দুই বাসের আরও প্রায় ৩৫ জন যাত্রী আহত হন। তাদের উদ্ধার করে ধামরাই উপজেলা স্বাস্থ্যকেন্দ্রসহ স্থানীয় বিভিন্ন হাসপাতাল ও ক্লিনিকে ভর্তি করা হয়েছে। এদের মধ্যে আশঙ্কাজনক পাঁচজনকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

ধামরাই ফায়ার সার্ভিসের ওয়্যার হাউস ইন্সপেক্টর সাহেব আলী বলেন, খবর পেয়ে ধামরাই ফায়ার সার্ভিসের একটি দল দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে আহতদের উদ্ধার করে উপজেলার বিভিন্ন হাসপাতালে প্রেরণ করে।  দুর্ঘটনাকবলিত যানবাহনগুলো সড়ক থেকে সরিয়ে দেয়।

ধামরাই থানার এসআই জুলফিকার হায়দার জানান, দুর্ঘটনার গাড়ি দুটি আটক করা হয়েছে তবে চালক ও হেলপারের সন্ধান পাওয়া যায়নি। নিহতদের নাম-পরিচয় জানার চেষ্টা চলছে বলে জানিয়েছেন ধামরাইর থানার ওসি শেখ রিজাউল হক দিপু।

creativesoftbd.com

     আজকের খবর বিডি কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

  

জরুরি সেবা ফোন নাম্বার