June 19, 2021, 4:01 pm

creativesoftbd.com

নিরাপত্তা চেয়ে থানায় জিডি করল সাবেক ডাকসু ভিপি নুরুল হক নুর

ঢাকা: বাসায় ফেরার পথে মোটরসাইকেলে প্রাইভেটকারের দুই দফা ধাক্কা এড়িয়ে অল্পের জন্য প্রাণে রক্ষা পেলেন সদ্য সাবেক ডাকসু ভিপি নুরুল হক নুর।

বুধবার (৯ ডিসেম্বর) রাত ১১টার দিকে মালিবাগ এলাকায় আবুল হোটেলের সামনে এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, নুরদের গাড়িকে ধাক্কা দিতে গেলে তাদের গাড়িটি কৌশলে পাশকাটিয়ে যায়, ফলে অন্য একটি ট্রাকের সাথে ধাক্কা দিয়ে বিধ্বস্ত হয় অভিযুক্তদের গাড়িটি। পরে এ বিষয়ে রাত সাড়ে ৪টার দিকে রাজধানীর হাতিরঝিল থানা বরাবর লিখিত অভিযোগ করেন নুর। তবে এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত কাউকে আটক করা হয়নি। এ নিয়ে থানার কোনোও আনুষ্ঠানিক বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

অভিযোগে নুর জানান, রাত ১১ টার দেক তার বাসা বাড্ডায় ফেরার পথে মালিবাগ ফ্লাইওভার থেকে নামার সময় একটি প্রাইভেটকার (ঢাকা মেট্রো গ- ৩১-৬৫০৮) তাদের অনুসরণ করে তাড়া করে। পরপর দুইবার প্রাইভেটকারটি নুরদের মোটরসাইকেলকে সজোরে ধাক্কা দেয়ার চেষ্টা করে, কিন্তু মোটরসাইকেল চালক নুরের আপন ছোট ভাই আমিনুল ইসলাম (২৪) কৌশলে প্রাইভেটকারের ধাক্কা এড়িয়ে যাওয়ায় উক্ত প্রাইভেটকারটি হাতিরঝিল থানাধীন ডি.আই.টি রোড আবুল হোটেল এর সামনে একটি বাসকে সজোরে ধাক্কা দেয়।

অভিযোগে বলা হয়, বাসের সাথে ধাক্কা দেওয়ার পরে প্রাইভেটকারটির চালক গাড়িটিকে কিছুটা পিছনের দিকে নিয়ে পুনরায় নুরদের মোটরসাইকেলকে ধাক্কা দেওয়ার চেষ্টা করে। তবে ইতোমধ্যে স্থানীয় জনসাধারণ এগিয়ে আসলে প্রাইভেটকারটি ইউটার্ন নিয়ে চলে যায়।

নুর বলেন, ঘটনা সংঘটনের সময় তিনি মোটরসাইকেলে না থেকে পাশের অন্য একটি গাড়িতে ছিলেন। তার সহযোগী শাকিল উজ্জামান ও  মোঃ সোহরাব হোসেন পিছনের আরেকটি গাড়িতে থেকে ঘটনাটি প্রত্যক্ষ করেন।

হত্যার উদ্দেশে এমনটা করা হয়েছে দাবি করে নুরুল হক নুর বলেন, গাড়িচাপা দিয়ে আমাকে হত্যার উদ্দেশ্যে ঘটনাটি ঘটিয়েছে বলে আমার বিশ্বাস। অতএব উপরোক্ত ঘটনার বিষয়ে প্রচলিত আইনে ব্যবস্থা গ্রহণ করার পাশাপাশি আমার নিরাপত্তা নিশ্চিতের দাবি জানাচ্ছি।

এ বিষয়ে রাতেই এক ফেসবুক লাইভে এসে নুর বলেন, তাদেরকে বলা হয়েছে স্টিকারযুক্ত গাড়িটি গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রলাণালয়ের সিনিয়র সচিব পদ-মর্যাদার প্রজেক্ট ম্যানেজারের। কিন্তু আমরা আসলে জানি না গাড়িটি কাদের। সিনিয়র সচিব হোক, এমপি হোক বা মন্ত্রী হোক, একটা গাড়ি এভাবে বেপরোয়াভাবে এক্সিডেন্ট করেছে তাকে তো কোনোভাবে ছাড়তে পারে না প্রশাসন। কিন্তু কোন যুক্তিতে, কোন ক্ষমতার প্রভাবে তাকে ছেড়ে দিয়েছে তা আমরা জানি না।

কিছুদিন আগে একবার পথিমধ্যে তাদের মোটরসাইকেলকে ধাক্কা দেয়া হয়েছিল বলে জানান নুর। তবে সেখানে গুরুতর আহত না হওয়ায় সেটাকে তেমন গুরুত্ব দেননি। তবে এবারের ঘটনার সাথে সেটারও যোগসূত্র থাকতে পারে বলেও মনে করছেন তিনি।

এর আগেও ডাকসুতে ছাত্রলীগ ও তাদের সহযোগী মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের হামলাসহ অন্তত ৮ বার ছাত্রলীগ ও আওয়ামী লীগের হামলার শিকার হয়েছেন নুর।

সুত্রঃ সোনালীনিউজ

creativesoftbd.com

     আজকের খবর বিডি কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

  

জরুরি সেবা ফোন নাম্বার