June 24, 2021, 4:05 am

creativesoftbd.com

রাজশাহী নগরীর নওদাপাড়া বাজার এলাকায় সড়ক দূরঘটনা নিহত ৩,আহত ৪

রাজশাহী নগরীর নওদাপাড়া বাজার এলাকায় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে একটি যাত্রীবাহী বাস দোকানের মধ্যে ঢুকে পড়ে ঘটনাস্থলেই দুই জন এবং হাসপাতালে এসে একজন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছে আরও ৪ জন। বুধবার সকাল ১১টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর উত্তেজিত জনতা প্রতিবাদে রাস্তা অবরোধ করে বিক্ষোভ করতে থাকেন।

নিহতদের মধ্যে একজন স্কুল ছাত্রী রয়েছে। তার নাম আনিকা (১৩)। সে নগরীর নওদাপাড়ার ভাড়ালিপাড়া এলাকার রুস্তমের মেয়ে এবং শাহমখদুম স্কুলের ছাত্রী। গুরুতর আহত অবস্থায় রামেক হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে সেখানে তার মৃত্যূ হয়।

ঘটনাস্থলে নিহত অপর দুইজন হলেন, শাহমখদুম থানার মোড় এলাকার ইসলামের ছেলে ইসমাইল হোসেন পিঙ্কু(২৪) এবং মোহাম্মদ আলীর ছেলে সবুজ ইসলাম (৩২)। তারা উভয়েই ডিসের লাইনের কাজ করতেন। ডিস সংযোগকারী জহিরুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এ ঘটনায় মিতু নামের অপর এক স্কুল ছাত্রী আহত হয়েছে। আহতদের সবাইকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকলে কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।
নগরীর শাহ মখদুম থানার ওসি জিল্লুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ওই ঘটনার পর বাসটি আটক করা হয়েছে। উত্তেজিত জনতাকে শান্ত করার চেষ্টা চলছে।

জানা যায়, বুধবার বেলা ১১ টার দিকে এ্যারো বেঙ্গল নামক একটি যাত্রীবাহী বাস রাজশাহী থেকে নওগাঁর উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাচ্ছিল । পথে নওদা পাড়া এলাকায় এসে পৌছালে সেটি নিয়ন্ত্রন হারিয়ে লাবিবা লাইব্রেরী নামক একটি লাইব্রেরীর মধ্যে ঢুকে যায়। ক্ষতিগ্রস্থ হয় জাহাঙ্গীর ট্রেডার্স নামের অপর একটি দোকান।এতে করে স্কুল ছাত্রীসহ তিনজন নিহত এবং অন্তত ৪ জন আহত হয়। পরে স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়।

ঘটনার পর পুলিশ সেখানে পৌছে বাসটি দোকান থেকে উদ্ধার করে নিয়ে আসে। এ ঘটনায় ওই এলাকায় চরম উত্তেজনা বিরাজ করতে থাকে।

স্থানীয়রা জানান, এ্যারো বেঙ্গল বাসের হেলপার বাসটি চালাচ্ছিল। অদক্ষ হওয়ায় অসাবধানতায় দুর্ঘটনাটি ঘটেছে।

তবে এ ঘটনার পর বাস চালক সেই হেলপার পলাতক রয়েছে। বাকি যাত্রিদের নিরাপদ স্থানে সরিয়ে এনেছে পুলিশ। বর্তমানে নওগাঁ-রাজশাহী মহাসড়ক অবরোধ করে রেখেছে উত্তেজিত জনতা।

creativesoftbd.com

     আজকের খবর বিডি কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

  

জরুরি সেবা ফোন নাম্বার