June 24, 2021, 1:15 am

creativesoftbd.com

রিজভীর শারীরিক অবস্থার খোঁজ-খবর নিতে তার বাসায় গেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ।

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভীর শারীরিক অবস্থার খোঁজ-খবর নিতে তার বাসায় গেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

শনিবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে রিজভীর মোহাম্মদপুরের হাউজিংয়ের বাসায় গিয়ে তার সঙ্গে কথা বলেন এবং তার সর্বশেষ শারীরিক অবস্থার খোঁজ-খবর নেন।

এ সময় বিএনপি মহাসচিবের সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির স্বাস্থ্যবিষয়ক সম্পাদক ডা. রফিকুল ইসলাম।

এর আগে শুক্রবার বাদ জুমা মোহাম্মদপুরের হাউজিংয়ের বাসায় গিয়ে রিজভীর শারীরিক খোঁজ নেন দলের ভাইস চেয়ারম্যান মোহাম্মাদ শাহজাহান। এ সময় তার সঙ্গে ছিলেন স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল কাদির ভূঁইয়া জুয়েল।

গত ৯ মে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে দুই মাস চিকিৎসাধীন থাকার পর ছাড়পত্র নিয়ে বাসায় ফেরেন বিএনপি নেতা রিজভী। বাসায় ব্যক্তিগত চিকিসকদের তত্ত্বাবধায়নে তার চিকিৎসা চলছে।

দলের গুরুত্বপূর্ণ এক নেতা জানান, খালেদা জিয়া নিজে অসুস্থ হলেও বিভিন্ন সময়ে তার চিকিৎসকদের মাধ্যমে রিজভীর খোঁজ নিয়েছেন। আর দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান নিয়মিতই রিজভীর শারীরিক খোঁজ নিচ্ছেন।

ঈদের দিন দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, ঈদের পরের দিন মির্জা আব্বাস রিজভীর বাসায় গিয়ে তার শারীরিক খোঁজ নেন।

এ ছাড়াও রিজভীকে দেখতে বাসায় যান দলের যুগ্ম মহাসচিব  সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল।

গুরুত্বপূর্ণ এক নেতা বলেন, ৯ মে হাসপাতাল থেকে বাসায় যাওয়া রুহুল কবির রিজভীকে প্রথম দেখায় চেনার উপায় ছিল না। শারীরিকভাবে খুবই দুর্বল ছিলেন। কিন্তু এখন ধীরে ধীরে তার শারীরিক অবস্থার উন্নতি হচ্ছে।

রুহুল কবির রিজভী গত ১৬ মার্চ করোনা টেস্ট করলে পজিটিভ রেজাল্ট নিয়ে পরদিন স্কয়ার হাসপাতালে ভর্তি হন। ১ এপ্রিল শ্বাসকষ্ট অনুভব করলে তাকে আইসিইউতে স্থানান্তর করা হয়। চেস্টের সিটি স্ক্যানে নানা জটিলতা ধরা পড়লে অক্সিজেন সহায়তা ছাড়া তিনি স্বাভাবিক শ্বাস-প্রশ্বাস নিতে পারছিলেন না বলে আইসিইউতে রেখে তার চিকিৎসা করা হয় বেশ কিছু দিন।

গত ১৭ এপ্রিল রিজভীর করোনা পরীক্ষার ফলাফল নেগেটিভ আসে। এর আগে তার দফা টেস্টে পজিটিভ আসে।

creativesoftbd.com

     আজকের খবর বিডি কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

  

জরুরি সেবা ফোন নাম্বার