June 23, 2021, 7:38 pm

creativesoftbd.com

১৮ বছর পরও রহস্যজনক কারনে হচ্ছে না টংগীর ছাত্রদলের কমিটি, হতাশ কর্মীরা

বিশেষ প্রতিনিধিঃ

ছাত্রদলকে বিএনপির প্রান বলে আখ্যা দিলেও কমিটি না হওয়ার ব্যাখ্যা কারো কাছেই নেই এমনকি দিতেও নারাজ দায়িত্বশীল নেতারা।

২০০২ সালে গাজীপুরে ছাত্রদলের কমিটি হওয়ার ১৮ বছর কেটে গেলেও, সেই কমিটির কেউ নতুন কোন কমিটি হতে দেননি। এই নিয়ে জেলা ছাত্রদলের সভাপতি প্রার্থীরা কয়েকবার মানববন্ধন এবং সংবাদ সম্মেলন সহ আন্দোলন করেও মেয়াদ শেষ হওয়া কমিটির কাছ থেকে কোন সমাধান পাননি। দীর্ঘ পরিক্রমায় নষ্ট হয়েছে কয়েকটি জেনারেশন এর রাজনৈতিক ক্যারিয়ার।

এরপর নতুন মহানগর হলে ১৬ বছর পর দুই বছর মেয়াদি পাচজনের একটি অনুমোদন হলেও নেতৃবৃন্দরা কমিটি পূর্নাঙ্গ করতে ব্যার্থ হন। এমনকি কোন ইউনিট কমিটিও দেননি।
সর্বশেষ বিভিন্ন জায়গায় কমিটির অবস্থা দেখে তারেক রহমান বিভাগীয় টীম গঠন করে ত্যাগী এবং নির্যাতিতদের সর্বোচ্চ প্রাধান্য দিয়ে কমিটি গঠনের মাধ্যমে দলকে গতিশীল করতে চেয়েছিলেন।
বিভাগীয় টীম যাচাই বাছাই করে গাজীপুর মহানগর এর দুইটি ইউনিট কমিটি দিলেও রহস্যজনকভাবে হচ্ছে না বাকী ইউনিটের কমিটি। অথচ প্রায় সব জেলার ইউনিট কমিটি দেয়া হয়েছে যেগুলোর কাজ এক সাথেই শুরু হয়েছিল।

এ ব্যাপারে বিভাগীয় টীম এবং কেন্দ্রীয় সংসদের নেতারা কোন একে অন্যকে দোষারোপ করছেন।
কালিয়াকৈরে একটি কমিটির আহবায়ক এর বিরুদ্ধে আওয়ামী লীগের সাথে সম্পর্কের অনেক প্রমাণ থাকার পরও কোন ব্যবস্থা না নিয়ে কিসের স্বার্থে কমিটি অনুমোদন হলো এই অভিযোগ স্থানীয় কর্মীদের। বঞ্চিত নেতারা দাবি করেন বিভাগীয় টীম এবং কেন্দ্রীয় সংসদের নেতারা তাদের সাথে অবিচার করেছেন।

ছাত্রদলে নতুন নিয়ম সংযোজন হবার পরও টংগীর কমিটি কেন হচ্ছে না এই প্রশ্ন এখন সবার মনে।
ছাত্রলীগ এর সাথে জড়িত এবং নির্যাতিতদের বাদ দিয়েই কমিটি গঠনের জন্য কেন্দ্রীয় সংসদের নেতারা তাদের দিয়ে কমিটি গঠনের চেষ্টা করেন। যা নিয়ে স্থানীয় নেতৃবৃন্দ অসন্তোষ প্রকাশ করেন।

কালের কন্ঠে টাকার বিনিময়ে কমিটি দেয়ার অভিযোগ এনে নিউজ হলে কমিটির সভাপতি এবং সেক্রেটারির সাথে কথা বলার চেষ্টা করেও তাদের ফোনে পাওয়া যায়নি।

 

creativesoftbd.com

     আজকের খবর বিডি কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

  

জরুরি সেবা ফোন নাম্বার